ফ্রিডম বাংলা নিউজ

বুধবার, জুন ১৯, ২০২৪ |

EN

রাজৈরে বিভিন্ন দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ

উপজেলা প্রতিনিধি | আপডেট: সোমবার, অক্টোবর ৩১, ২০২২

রাজৈরে বিভিন্ন দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ
মাদারীপুরের রাজৈরে হাইওয়ে পুলিশের চাঁদাবাজি বন্ধসহ বিভিন্ন দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ করেছে ইজিবাইক চালকরা। 

রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে  ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের উপজেলার টেকেরহাট বাসস্ট্যান্ডের মহাসড়কের ওপর ইজিবাইক রেখে ব্যারিকেড দিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করে ঘণ্টাব্যাপী এ অবরোধ করা হয়।

এ সময় মহাসড়ক অবরোধের উভয় পাশে প্রায় ৮ কিলোমিটারব্যাপী যানজটের সৃষ্টি হয়।পরে রাজৈর থানার পুলিশ বিষয়টি সমাধানের আশ্বাস দিলে ইজিবাইক চালকরা অবরোধ তুলে নেয়।

বিক্ষোভ মিছিলের সময় জানা যায়, হাইওয়ে পুলিশ প্রতিদিনই চাঁদাবাজি করে আসছে। পুলিশকে নিয়মিত বখরা দিলে সেই গাড়ি হাইওয়েতে চলতে পারে। না দিলে গাড়ি আটকিয়ে তাদের চাহিদা মোতাবেক টাকা আদায় করে ছেড়ে দেয়। তাই পুলিশের চাঁদাবাজির নির্যাতন থেকে বাঁচতে রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের উপজেলার টেকেরহাট বাসস্ট্যান্ডের মহাসড়কে ইজিবাইক রেখে ব্যারিকেড দিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করে ইজি বাইক চালকেরা।পরে অবরোধের খবর পেয়ে রাজৈর থানার ওসি মো. আলমগীর হোসেন  ঘটনাস্থলে এসে এ বিষয়ে সমাধানের আশ্বাস দিলে ইজিবাইক চালকরা অবরোধ তুলে নেন।

ইজিবাইক চালক মনিরুজ্জামান জানান, আমরা পৌরসভার মধ্যে নির্বিঘ্নে চলাচল করতে পারলে পরিবার পরিজন নিয়ে কোনোরকম বাঁচতে পারব।পুলিশ আমাদের গাড়ি আটকিয়ে টাকা নেয় অথবা আমাদের মানষিক অশান্তি করে।।আমরা চাই পুলিশ চাদাবাজি বন্ধ হোক।

হাইওয়ে পুলিশের  উপপরিদর্শক (এসআই) একরাম হাসানুজ্জামান তাদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, হাইওয়েতে ইজিবাইক চালানো হাইকোর্ট থেকে নিষেধ। তাই আমরা হাইওয়েতে ইজিবাইক চালালে মামলা দেই। এ মামলা দেওয়ার কারণে ওরা আমাদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির মিথ্যা অভিযোগ এনেছে।

রাজৈর থানার ওসি মো. আলমগীর হোসেন জানান, ইজিবাইক চালকদের মহাসড়ক অবরোধের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে তাদের সমাধানে আশ্বাস দিলে তারা অবরোধ তুলে নেন।